পথশিশুদের মাঝে ঈদ বস্ত্র বিতরন সন্ধান চাই মুকসুদপুরে ব্যাংক এশিয়ার ইফতার মাহফিল মুকসুদপুরে প্রতিপক্ষের হামলায় এক মুক্তিযোদ্ধা নিহত
Untitled Document
    ||   সন্ধান চাই      ||   মুকসুদপুরে ব্যাংক এশিয়ার ইফতার মাহফিল      ||   মুকসুদপুরে প্রতিপক্ষের হামলায় এক মুক্তিযোদ্ধা নিহত      ||   টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধীতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা      ||   রাজৈরের কদমবাড়িতে গনেশ পাগলের ঐতিহ্যবাহী কুম্ভমেলায় লাখো ভক্তের ঢল ॥      ||   স্বাচিপের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত      ||   মাদারীপুরে ৫০টি অবৈধ দোকান উচ্ছেদ ও ভ্রাম্যমাণ আদালতে জরিমানা      ||   মাদারীপুরে ৫০টি অবৈধ দোকান উচ্ছেদ ও ভ্রাম্যমাণ আদালতে জরিমানা      ||   গোপালগঞ্জে ৮ মাদক ব্যবসায়ীসহ গ্রেফতার-৩২      ||   রাজৈরে ব্যবসায়ীদের সাথে উপজেলা প্রশাসনের মত বিনিময় সভা।      ||   বিরল রোগে আক্রান্ত মুক্তামনি আর নেই      ||   গোপালগঞ্জে জঙ্গিবাদ ও মাদকাশক্তি প্রতিরোধ বিষয়ক সভা      ||   গোপালগঞ্জে ছাত্রলীগের আনন্দ মিছিল      ||   টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতার সমাধীতে রাষ্ট্রপতির শ্রদ্ধা      ||   মুকসুদপুরে শুভেচ্ছা সফর করে গেলেন সিইসি নুরুল হুদা     
তারিখ: 2017-09-29 | সময়: 13:33:34 | প্রতিনিধি:
গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায় সাংবাদিক নির্মল সেনের বাড়িতে ৪শ? বছর ধরে শারদীয় দুর্গা পূজা অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। বাংলা ১০২৪ সালে কোটালীপাড়া উপজেলার দীঘিরপাড় গ্রামে নির্মল সেনের পৈতৃক বাড়িতে পিতৃ পুরুষ রাম তনু সেন গুপ্ত ও রাম দয়াল সেন গুপ্ত দুর্গা পূজা প্রচলন করেন। তারপর থেকে ওই বাড়িতে দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হরে আসছে। এ বছর ওই পূজা ৪ শ? বছরে পা দিয়েছে। এখানে চন্ডিপাঠ, মন্ত্র উচ্চারন, ঢাকের বাদ্য , কাসর ঘন্টা, আরতি, উলুধ্বনি সহ নানা উপাচারে হৃদয়ের অর্ঘ নিবেদন করে দেবীর প্রতি অঞ্জলী নিবেদন করা হয়। এ বাড়িতে বৈদিক নিয়মে সাপ্তিক পূজা সম্পন্ন করা হয়। পূজায় কোন তমসিক স্পর্শ নেই। বনেদি বাড়ির পূজা হিসাবে দীঘিরপাড় গ্রামের সেন বাড়ি দুর্গা পূজা স্বীকৃতি পেয়েছে। চন্দন সেন গুপ্ত অর্পন জানান, সেনবাড়ির পূজা প্রচলনা করার পর ষষ্ঠী থেকে নবমী পর্যন্ত মহিষ বলি দেয়া হত। ১৯৪৭ সালে দেশ বিভাগের আগের বছর নির্মল সেনের মেজ ভাই বিমল সেন শেষ বারের মতো দুর্গা পূজায় মহিষ বলি দেন। তারপর মহিষ বলি বন্ধ করে দেয়া হয়। ১৯৪৮ সালে ষষ্ঠী থেকে নবমী পর্যন্ত পূজায় পাঠা বলি প্রচলন করে সেন পরিবার। পরে পাঠাবলি আরো কমিয়ে আনা হয়। ২০ বছর আগে জমিদার শশী সেন গুপ্তের ছেলে সুনীল সেন গুপ্ত সপ্তমী ও অষ্টমী পূজায় পাঠা বলির প্রথা প্রচলন করেন। তারপর থেকে সেন ড়ির পূজার ২ দিন পাঠা বলি অব্যাহত রয়েছে।
ইতিহাস-ঐতিহ্য
কোটালীপাড়ায় ৪ শ? বছরের দুর্গাপূজা

 
 
  Copyright © sondhan24.com 2016, Developde by JM IT Solution